উপজেলা নির্বাচন; ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুরে প্রার্থীতা যাচাইয়ে অনিয়মের অভিযোগ

মোঃ ইলিয়াস আলী ঠাকুরগাঁও উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে হরিপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের বর্ধিত সভা এবং মনোনয়ন পত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে দলীয় নেতাকর্মীদের অবমূল্যায়ন, অগঠনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় মনোনয়পত্র বিক্রি, বর্ধিত সভার কাজ না শেষ হতেই সভা সমাপ্তি, সভায় দলীয় নেতাকর্মীদের উপস্থিতির স্বাক্ষরকে রেজুলেশনের স্বাক্ষর দেখিয়ে অনিয়ম করে প্রার্থীতা যাচাই মনোনয়ন বোর্ডে প্রেরণসহ নানা অভিযোগ তুলে সংবাদ সম্মেলন উপজলা পরিষদ নির্বাচনে অংশগ্রহণে ইচ্ছুক আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠন থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী প্রার্থীরা।

বুধবার দুপুরে হরিপুর প্রেসক্লাবে মনোনয়ন প্রত্যাশীরা এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন।

মনোনয়ন প্রত্যাশী প্রার্থীদের পক্ষে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পড়েন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন প্রত্যাশী সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম শামীম ফেরদৌস টগর।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের গঠনতন্ত্র এবং হাইকমান্ডের নির্দেশনা না মেনে অগঠনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় এবং ব্যাপক অনিয়মের মধ্য দিয়ে যারা অজনপ্রিয় তাদেরকে জনপ্রিয় দেখিয়ে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রার্থীরা যাচাই করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, গত ২৮ জানুয়ারি উপজেলা আওয়ামীলীগের বর্ধিত সভায় ৩টি পদে ১৮ জন প্রার্থীর কাছে মনোনয়নপত্র বিতরণ করা হলেও সভায় একাধিক দলীয় নেতাকর্মীকে প্রবেশ করতে না দেয়ায় অন্যান্য মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করতে পারেনি। দলীয় সিদ্ধান্ত গ্রহণ না করেই সভার সমাপ্তি ঘোষণা এবং এবং সভায় উপস্থিত থাকা নেতাকর্মীদর উপস্থিতির স্বাক্ষরকে রেজুলেশনে ব্যবহার করে মনগড়া প্রার্থীর তালিকা একক প্রার্থীর তালিকা জেলা স্থানীয় সরকার বোর্ডের মাধ্যমে কেন্দ্রীয় স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ডের নিকট প্রেরণের অপচেষ্টা করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে প্রার্থীরা হরিপুর উপজেলায় সম্পূর্ণ গঠনতান্ত্রিক প্রক্রিয়া অনুসরণ করে নিরপেক্ষ তদন্ত ও জরিপের মাধ্যমে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নিরস্কুশ বিজয়ের লক্ষে সর্বাধিক জনপ্রিয় প্রার্থী বাছাই এবং চূড়ান্ত মনোনয়ন প্রদানের দাবী জানান।

জানতে চাইলে হরিপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নগেন কুমার পাল বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের স্বাক্ষরিত চিঠির নিদের্শনা মোতাবেক উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রার্থীতা যাচাই বাছাইয়ের কাজ করা হচ্ছে। দলীয় নিদের্শনার বাইরে যাবার কোন সুযোগ আমাদের নেই।

হরিপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক জিয়াউল হাসান মুকুল বলেন, সকলের সম্মতি হাই কমান্ডের নির্দেশনা অনুযায়ী বর্ধিত সভা ডেকে দলীয় নেতাকর্মীদের উপস্থিতি যাচাই-বাছাই কাজ করা হয়েছে। যারা সংবাদ সম্মেলনের অভিযোগ তুলেছেন তাদের স্বাক্ষরও রয়েছে। বর্ধিত সভায় গৃহিত সিদ্ধান্ত তাদের চাওয়া প্রার্থীর পক্ষে না যাওয়ার কারণেই তারা এসব মিথ্যা অভিযোগ আপনাদের করেছে। এ সমস্ত অভিযোগের কোন ভিত্তি নেই।

আসন্ন হরিপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের মনোনয়ন প্রত্যাশী ০৯ জন উপজেলা চেয়ারম্যান পদে, ০৫ জন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে এবং ০৪ জন উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন।

সংবাদ সম্মেলনে স্থানীয় প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>

Shares